পরশুরামের মুহুরী ও কুহুয়া নদীর মোহনায় অস্থায়ী বাঁধ নির্মানের দাবি


বৃহস্পতিবার, ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯,

ফেনীর পরশুরাম উপজেলার মুহুরী কহুয়া ও সিলোনিয়া নদীর পানি শুকিয়ে যাচ্ছে । এতে ইরি মৌসুমের বরোচাষাবাদ হুমকীর মুখে পড়েছে। কৃষকরা বিষয়টি জেলা প্রশাসক সহ সংলিষ্ট কর্মকর্তার কাছে লিখিত ভাবে আবেদন জানিয়েছেন। উত্তর কোলাপাড়া গ্রামের কৃষক রবিউল ইসলাম জানান মুহুরী নদীর উজানের অংশে ভারত সিমান্তে পানি আটকিয়ে রাখায় বাংলাদেশের অংশে পানি প্রবাহ কমে গেছে। অল্প পরিমান পানি আসায় শুধুমাত্র মুহুরী নদীতে জমা হয়ে থাকায় কুহুয়া নদী একে বারেই শুকিয়ে গেছে। পানির পাম্প চালু করার কিছুক্ষনের মধ্যে পানি সংকটে তা বন্ধ হয়ে যায়। স্থানীয়রা জানান জরুরী ভিত্তিতে পরশুরামের মুহুরী ও কহুয়া নদীর মোহনার মুখে অস্থায়ী বাঁধ নির্মান করলে পৌর এলাকা ও চিথলিয়ার কয়েক হাজার কৃষক সেচ পানির সংকট থেকে রেহাই পাওয়া যাবে। ইতিমধ্যে পরশুরাম উপজেলার পৌর এলাকার কৃষকরা পরশুরাম উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা বরাবরে অস্থায়ী বাঁধ নির্মানের জন্য আবেদন করেছেন। এছাড়াও গত (১১ ফেব্রুয়ারী) ফেনীর জেলা প্রশাসককে মো ওয়াহিদুজ্জামানকে বাঁধ নির্মান করতে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও কৃষকরা দাবি জানিয়েছেন। পরশুরাম উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সিরাজুল ইসলাম জানান পরশুরামে চলতি বরো মৌসুমে লক্ষমাত্রা ধরা হয়েছে ৩ হাজার ২ শ ৭০ হেক্টর জমি বরো চাষাবাদ হবে। কিন্তু নদীর পানি শুকিয়ে যাওয়ায় অন্তত ৫ শ হেক্টরে চাষাবাদ হুমকীর মুখে পড়েছে। কৃষি কর্মকর্তা জানান এতে উপজেলার প্রায় সাড়ে ৪ থেকে ৫ কোটি টাকার ক্ষতি সম্মুখীন হতে হবে। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা সিরাজুল ইসলাম আরো জানান মুহুরী ও কহুয়া নদীতে অস্থায়ী ভাবে ১৩৭ ফুট দীর্ঘ বালির বস্তা দিয়ে অস্থায়ী বাঁধ নির্মান করতে প্রায় দুই লাখ টাকা ব্যায় হবে। তিনি জানান বিষয়টি ইতিমধ্যে জেলা প্রশাসক কে জানানো হয়েছে। কৃষি অফিস থেকে জানা গেছে পানি সংকটের কারনে পৌর এলাকার উত্তর কোলাপাড়া, দক্ষিন কোলাপাড়া, বাশপদুয়া, খোন্দকিয়া, বাউরখুমা , বাউরপাথর, বক্সমাহমুদ ইউনিয়েনের টেটেশ্বর, দক্ষিন টেটেশ্বর, চিথলিয়া ইউনিয়নের কিসমত ঘনিয়া মোড়া, চিথলিয়া, রাজষপুর,শালধর, ধনিক্ন্ডুা, মির্জানগর ইউনিয়নের পুর্বসাহেব নগর, কালিকৃষœ নগর, মেলাঘর, কালিকাপুর সহ প্রায় ২০টি গ্রামের সেচ সসম্যা দেখা দিয়েছে। উপজেলার মির্জানগর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো নুরুজ্জামান ভুট্টেুা জানান কৃষকদের পানি সংকট সমাধানের জন্য ইতিমধ্যে জেলা প্রশাসক সহ সংলিষ্ট দপ্তরের সকলকে জানানো হয়েছে। কিন্তু এখনো কোন সমাধান করা হয়নি।

Share and Enjoy

  • Facebook
  • Twitter
  • Delicious
  • LinkedIn
  • StumbleUpon
  • Add to favorites
  • Email
  • RSS





Related News

  • পরশুরাম উপজেলা প্রশাসন ও ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের যৌথ অভিযান
  • পরশুরামে ভাতাভোগী মহিলাদের গর্ভবর্তী হওয়ার প্রমান পত্র নিতে ২শ থেকে ৫শ টাকা লাগে !
  • পরশুরামে আওয়ামীলীগ নেতার হাতে মার খেয়ে অপমানে কৃষকের আত্বহত্যা
  • পরশুরামে ৩ নভেম্বর জেলহত্যা দিবস পালন
  • পরশুরাম উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসাবে ইয়াছমিন আকতারের যোগদান
  • সম্রাটের উপর কিছুটা নমনীয় হচ্ছেন সরকারের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী মহল
  • সম্রাটের মুক্তির জন্য প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন ছোট বোন ফারহানা চৌধুরী শিরিন
  • পরশুরাম উপজেলা আ’লীগে কামাল-সভাপতি, সাজেল সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত
  • Leave a Reply

    Your email address will not be published. Required fields are marked *

    Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com
    Email
    Print